ঘরে বসে ডলার আয় করতে কম বেশী সবাই ইচ্ছুক, আর তার জন্য দরকার সঠিক গাইড লাইন তাহলেই আপনি টার্গেট পূরণ করতে পারবেন।



ঘরে বসে ডলার আয় করতে হলে অনেক সমস্যার মুখোমুখি আপনাকে হতে হবে। মাঝে মাঝে সাসপেন্ড 
খাবেন আবার প্রফিট এর মুখ ও দেখবেন। 

মোট কথা অন্যান্য কাজে যেমন লাভ লস আছে এখানেও সেটা আছে। কিন্তু সকল কিছু কে উপেক্ষা করে যদি লেগে থাকতে পারেন তবে আপনি অবশ্যই সফল হবেন। 

আর প্রতিবার যে বাধার সম্মুখীন হবেন তা আপনাকে নতুন নতুন জ্ঞান অর্জন কিংবা ভুল শুধরাতে সাহায্য করবে। 
আর অনলাইনে সময় দিতে না পারলে এগুলো থেকে বিরত থাকতেই আমি সাজেশন দিবো। হয়তো আপনাকে রাত জেগে আরামের ঘুম হারাম করে দিয়ে হলেও কাজ করতে হবে।

প্রথমেই আমি নেগেটিভ দিক নিয়ে আলোচনা করলাম এর কারন হলো আগে সমস্যা সম্পর্কে জেনেও যে ধৈর্য ধরে কাজ করতে পারবে সে এখানে টিকে থাকতে পারবে।

এবার আপনি ভেবে দেখুন আপনি কি পারবেন ? আপনার দ্বারা কি আসলেও সম্ভব ঘরে বসে ডলার আয় করা ?


যদি আপনার উত্তর হ্যা হয়ে থাকে তবে এই অনলাইন আয়ের পুরো সিরিজ টি আপনার জন্য।
আমি এই  ঘরে বসে ডলার আয় করার সিরিজটি ১০০ পর্বের করতে যাচ্ছি।

এখানে আমি অনলাইনে প্রতিদিন আয় করা যায় এমন মাধ্যম গুলো তুলে ধরার চেষ্টা করবো।
আর সাথে অবশ্যই আমার পেমেন্ট প্রুফ গুলো যুক্ত করে দিবো যাতে আপনা্রা নিশ্চিন্তে কাজ করতে পারেন।

আর হ্যা কাজ করার সম্পুর্ন গাইড লাইন আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করবো তাই যারা আমাকে ট্রাস্ট করেন শুধু তারা আমার ঘরে বসে ডলার আয় সিরিজে অংশগ্রহন করুন।

আমি প্রতিদিনের আয় বলতে কথাটি ক্লিয়ার করে দিচ্ছি;

ধরে নিন আপনি একজন ব্লগার, ইউটিউবার কিংবা এপ ডেভেলপার তাহলে আপনার আয়ের উৎস হবে Adsense কিংবা Admob প্রাথমিক লেভেলে।

আর এখানে পেমেন্ট আপনি পাবেন প্রতিমাসে তবে যদি ১০০ ডলার সর্বনিম্ন টার্গেট পূরণ করতে পারেন তবেই। অনেকে তো বছর ও অপেক্ষা করে আবার কেউ প্রতিমাসে টার্গেট এর থেকে ১০ গুন বেশীও করে ফেলে।

এখানে কিন্তু আপনার প্রতিদিন পেমেন্ট নেওয়ার সু্যোগ টা নেই আপনাকে অপেক্ষা করতে হয়। 
তবে আপনি অন্যান্য কাজ গুলোর পাশাপাশি আমার ঘরে বসে ডলার আয় সিরিজ টি কে পার্ট টাইম জব হিসাবে নিতে পারেন। 

আমি গ্যারান্টি দিচ্ছি যারা আমার সিরিজ টি ফলো করবে এবং সঠিক ভাবে কাজ করতে পারবে আমার নির্দেশনা অনুযায়ী। তাদের  আগামী তিন মাসের মধে প্রতি ৩০ দিনে আয় ১০০+ ডলার থাকবে।

তবে যারা অনলাইনে অনেক কষ্ট করছেন কিন্তু সে অনুযায়ী আয় করতে পারেন নাই তারা আমার শেয়ার করা আইডিয়া ফলো করুন ইনশাআল্লাহ আপনি ভালো ফলাফল পাবেন।
( বাট মনে রাখবেন আই এম নট ফ্রম হার্বাল কোম্পানী ) - 

ঘরে বসে ডলার আয় করতে চাইলে ইনভেস্ট করতে হবে কি ?

ব্রাদার অনলাইনে সিস্টেম টা হলো দিতে পারলে নিতে পারবেন
আমার কথার মানে হয়তো অনেকে বুঝেন নাই কিংবা ব্রাউজার টি বন্ধ করতে যাচ্ছেন - তাড়াতাড়ি করুন ব্রাদার।

দিতে পারলে নিতে পারবেন বলতে এখানে আমি দুটি জিনিস বুঝাতে চেষ্টা করেছি।
 হয় টাকা খরচ করুন নয়তো প্রচুর সময় নষ্ট করুন।

আপনার টাকা থাকলে ইনভেস্ট করেও আয় করতে পারবেন। কারন টাকা খরচ করলে একটা টং দোকান কে একদিন একটা ব্রান্ড বানানো সম্ভব।

আর যারা ইনভেস্ট করতে পারবেন না তারা আমার আইডিয়া গুলো কাজে লাগিয়ে ইনভেস্ট করার টাকা অনলাইন থেকে কাজ করে জমাতে পারবেন তা আমি নিজেই গাইড করবো আপনাকে।

আর আমার ইচ্ছা আছে মোট ৩০ জন কে আমি ২৪ ঘন্টা আমার গাইডলাইনে কিংবা আমার সাপোর্টে রেখে শিখাবো তবে যদি আমার মনে হয় আপনাকে লাইভ গাইড করা দরকার তবেই।  আর পাচ জনকে আমি ইনভেস্ট করে দিবো তবে তার জন্য আপনাকে বেটার কাজ করে নিজেকে প্রমান করতে হবে।

আর বাকীরা জাস্ট আমার আর্টিকেল গুলো পর্ব অনুযায়ী অনুসরণ করলেই হবে। 

আর যারা আমার সাথে ফেসবুকে যোগাযোগ করতে চাও তারা শেষ প্রান্তে লিংক পেয়ে যাবেন।

ঘরে বসে ডলার আয় করতে কি কাজ করতে হবে আপনাকে ?

আয় করার তো অগণিত মাধ্যম আছে। কিন্তু আপনি যদি আমাকে ট্রাস্ট করে কাজ করতে চান তবে আমি যদি বলি গেমস খেলতে হবে তাই আপনাকে করতে হবে। কিংবা আমি যদি বলি আপনাকে গান শুনতে হবে তাহলে আপনাকে তাই করতে হবে। মোট কথা আমার গাইড লাইনের বাহিরে থাকলে আমি আপনাকে কোন প্রকার হেল্প করবোনা।

আর যারা আমার গাইড লাইন আমাকে ট্রাস্ট করে ফলো করবেন তাদের সবাইকে আমি লাইভ সাপোর্ট দেওয়ার যথাসাধ্য চেষ্টা করবো। এর বিনিময়ে আমাকে কোন প্রকার অর্থ প্রদান করতে হবে না আমাকে জাস্ট গালাগালি করা যাবেনা তাহলে আমি সিরিজ অপূর্ণ রেখেই চলে যাবো।

কাজ করার জন্য কি প্রয়োজন হবে ?

প্রথমত আপনাকে টার্গেট নিতে হবে ১০০ দিন আপনি কাজ শিখবেন। এই ১০০ দিনে যা আয় করবেন সেগুলোকে মনে করতে হবে আপনার ইনভেস্ট। সব ইনভেস্ট না ব্রাদার প্রফিট ও পাবেন যা দিয়ে আপনার পকেট মানি হয়ে যাবে কাজ শিখার পাশাপাশি।

আর বাদ বাকী যা লাগবে তা আমি সময় মত জানাবো সো অপেক্ষা করতে হবে আপনাকে আরো বিস্তারিত জানার জন্য।

টাকা কি আসলেও পাবেন ? 

 অবশ্যই টাকা পাবেন এবং তা ইনস্ট্যান্ট ।
সব পজেটিভ ভাবে দেখলে হবে না আমি সমস্যার কথাও বলি আপনি যদি আমার গাইড লাইন অনুযায়ী কাজ  না করেন তবে সমস্যা হবেনা তবে আপনি যদি বুঝতে ভুল করে বসেন কিংবা সঠিক নিয়মে কাজ করতে না পারেন তবে কিন্তু সাসপেন্ড হওয়ার ও সম্ভাবনা রয়েছে।

বেশী নেগেটিভ কথা বলাতে ভয় পান নি তো ভয় পাবেন না সব কিছুর জন্যই প্রস্তুত থাকতে হয় তাই বলা আর কি।


আজকে আমরা কোন প্রকার কাজ নিয়ে আলোচনা করবোনা। আজকে জাস্ট আপনাদের মতামত জানতে এসেছি আপনারা কি চান আমি আপনাদের সাথে আমার কাজ করার আইডিয়া এবং অভিজ্ঞতা গুলো শেয়ার করি যদি চান তবে অবশ্যই আপনার মূল্যবান মতামত জানাতে ভুলবেন না কিন্তু।

কারন ১০০ পর্ব লিখতে হলে আমার নিজের কাজ বন্ধ রেখে সময় দিয়ে লিখতে হবে তাই আমি মতামত চাচ্ছি যদি আপনারা রেসপন্স করেন তবে অবশ্যই ২য় পর্ব প্রকাশ হবে নয়তো এখানেই ঘরে বসে মাসে ৫০-৩০০ ডলার আয় করার সিরিজ টি ইতি টানবো।

অনেক দিন পর আবার লিখতে বসলাম এখন আর ইচ্ছা থাকলে শখের লেখালিখি আর করা হয়না তাই কোন প্রকার ভুল ধরা পড়লে ক্ষমা প্রার্থী।

চাইলে আমাকে ফেসবুকে ফলো করতে পারেন নিচে লিংক;

2 Comments

Post a Comment

Ad

Referral Banner

Ad

Referral Banner